বুধবার, ৩০ মে, ২০১৮

খারপাড়ায় অচেতন করে ব্যবসায়ীর বাসার সর্বস্ব লুট

মিরাবাজার খারপাড়া মিতালী-৪৩/৩ চৌধুরী ভিলায় খাবারে চেতনা নাশক ঔষধ মিশিয়ে মালামাল লুটপাট করেছে দুর্বৃত্তরা। ২৮ মে সোমবার দিবাগত রাতে আনুমানিক ৩টা থেকে ভোর রাতের যে কোন এক সময় ব্যবসায়ী জয়নুল আহমদের বাসায় ঘটনাটি ঘটে। ২৯ মে মঙ্গলবার সকালে প্রতিবেশীর সহায়তায় অজ্ঞান অবস্থায় থাকা জয়নুল আহমদ (৬০), তার স্ত্রী হাসনা বেগম (৪৫) ও বোন মুসলিমা বেগম (৫০)-কে উদ্ধার করে ইবনে সিনা হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয়েছে।ইবনে সিনা হাসপাতালে গিয়ে রোগির পরিবারের সাথে কথা বলে জানাযায় সেহেরীর খাবার খাওয়ার পরে পরিবারের ৩ জন হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়ে। মঙ্গলবার সকালে জয়নুল আহমদের বাসায় কোন সাড়া-শব্দ না পেয়ে প্রতিবেশিরা ডাকাডাকি শুরু করলে এক পর্যায়ে জয়নুল আহমদ সহ পরিবারের অপর দু’সদস্য অচেতন অবস্থায় দেখতে পান। এ সময় প্রতিবেশিরা দেখতে পায় স্টীলের আলমিরা ভাঙ্গা, ঘরের সকল মালামাল এলোমেলো পড়ে আছে।

প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে চেতনা নাশক ঔষধ খাবারে সাথে মিশিয়ে দেওয়ার মাধ্যমে এদের অজ্ঞান করে সর্বস্ব লুট করা হয়েছে। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত জয়নুল আহমদের স্ত্রী ও বোনের জ্ঞান ফিরলেও জয়নুলের জ্ঞান ফিরেনি।
খবর পেয়ে সোবহানীঘাট পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ কামাল আহমদ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন এবং ইবনে সিনা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন জয়নুল সহ পরিবারের সদস্যদের সাক্ষাৎ করেছেন। তবে জয়নুলের জ্ঞান না ফিরায় ক্ষয়-ক্ষতির পরিমাণ এখনো নিশ্চিত করা যায়নি।