বুধবার, ২ মে, ২০১৮

সময় এসেছে যারা বাংলাদেশের ভালো চায় না তাদের বর্জন করার: নূর

সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর বলেছেন, দেশে আবারো জ্বালাও-পোড়াও, অবরোধ, হাওয়া ভবন, দুর্নীতি, লুটপাট শুরু হউক, তারেক জিয়া দেশের টাকা নিয়ে বিদেশে চলে যাক, এইটা আমরা চাই না। আমরা বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা চাই, আমরা সুন্দর বাংলাদেশ চাই, যে বাংলাদেশের ১৬ কোটি মানুষ খেয়ে-পড়ে ভালোভাবে জীবনযাপন করতে পারবেন। সময় এসেছে যারা বাংলাদেশের ভালো চায় না, শান্তি চায়না তাদেরকে বর্জন করার।’


মহান মে দিবস উপলক্ষে মঙ্গলবার দুপুরে নীলফামারী জেলা শহরের কেন্দ্রীয় শহিদ মিনার চত্বরে জেলা প্রশাসন আয়োজিত শ্রমিক সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন নীলফামারী জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ খালেদ রহীম।

মন্ত্রী নূর আরো বলেন, বাংলাদেশের মুক্তির সংগ্রামে কৃষক শ্রমিকের অনেক অবদান আছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আমরা উন্নয়নশীল দেশে পরিণত হয়েছি। আমাদের ঘরে ঘরে খাবার আছে, পরনে কাপড় আছে, ছেলে-মেয়রা লেখাপড়ার সুযোগ পাচ্ছে, তারা বিনামূল্যে বই পাচ্ছে। কৃষকরা নায্যমূল্যে সার পাচ্ছেন, ফসলের দাম পাচ্ছেন।

শিক্ষক, সরকারী কর্মকর্তা-কর্মচারীর বেতন দ্বিগুণ-তিনগুণ হয়েছে। শ্রমিকদের মজুরী বেড়েছে। পেশাক শ্রমিকদের নূন্যতম বেতন ধার্য্য করা হয়েছে, সমস্ত কল-কারখানায় নূন্যতম বেতন ধার্য করা হয়েছে। যেসব কারখানা চলে না, বন্ধ হয়ে যাওয়ার উপক্রম সেখানেও ভুর্তকি দিয়ে তিনি শ্রমিকদের খাওয়া পড়ার ব্যবস্থা করে বাঁচিয়ে রেখেছেন। সহযোগিতা করছেন, শ্রমিক কল্যাণ ট্রাস্ট করেছেন, সবাইকে শান্তিতে রেখেছেন। এই শান্তি না থকলে দেশটা সামনের দিকে আগাবে না। আবারো সামনে সময় আসছে সবাই একসঙ্গে থাকবেন, একসঙ্গে হাটবেন। শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করবেন। সবাই শান্তির পথ বেছে নিবেন।

সমাবেশে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন পুলিশ সুপার মুহাম্মদ আশরাফ হোসেন, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি দেওয়ান কামাল আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক মমতাজুল হক, জেলা জজ আদালতের পিপি অক্ষয় কুমার রায়, জেলা সিপিবির সাধারণ সম্পাদক শ্রীদাম দাস, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি মসফিকুল ইসলাম রিন্টু, জেলা ট্রাক-ট্যাংক লরি শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি গোলাম রহমান ডালু প্রমুখ।