সোমবার, ১৬ এপ্রিল, ২০১৮

অস্ট্রেলিয়ায় বৈশাখী পালন করায় নারী শিল্পী কে হুমকি-ধমকি

অথিতি প্রতিবেদক:কি আজব মানসিকতা এদের ! পহেলা বৈশাখে সিডনীর ANZ স্টেডিয়াম থেকে একটা ফেসবুক লাইভ করলাম এখানকার বাংলাদেশ কমিউনিটির আয়োজিত বৈশাখী মেলা নিয়ে। উদ্দেশ্য ছিল বৈশাখের আনন্দ সবার সাথে ভাগাভাগি করে নেয়া । লাইভ টা করলাম একবারে কোন পুর্ব পরিকল্পনা ছাডাই - কোন ধর্ম , জাতি , গোষ্ঠীর অনুভুতি কে   আঘাত করতে তো নয়ই । এটার সাথে ইসলাম ধর্মের কি সম্পর্ক বুঝলামনা । আমি নিজে ও ইসলাম ধর্মে বিশ্বাসী উদারপন্থী মুসলিম ।
যাহোক, কতিপয় অতি কট্টরপন্থী মুসলিম  ( ইসলাম ধর্মের নামে যারা বাড়া বাড়ি করে) আমাকে ইতিমধ্যে হুমকি ধামকি দেয়া শুরু করেছেন । ইনবক্স ভরে গেছে তাদের নেগেটিভ মেসেজ আর হুমকিতে) । সব গুলোকে ব্লক করে দিলাম । তারপর ওপিপিলিকার মতো সারি বেঁধে ঢুকছে ইনবক্সে । প্রোফাইল দেখলাম । এদের বেশীরভাগ সিলেট, চিটাগীং , কুমিল্লা   মাদারীপুরসহ অন্যান্য কিছ্ এলাকার । একজন আছেন স্পেন থেকে । যাহোক , যারা এমন কুসংস্কারাচ্ছন্ন্ মানসিকতা নিয়ে  মন্তব্য করছেন , হুমকি দিচ্ছেন তাদেরকে বলি , আপনার কুসংস্কার নিয়ে আপনি থাকুন। ঢেঁকি স্বর্গে গেলে ও ধান ভাবে। আমার পেশাই সাংবাদিকতা ।


বাংলাদেশে থাকতে ও আপনাদেরই মতো অনেকে আমাকে চিঠি পাঠিয়ে মেরে ফেলার  হুমকি দিয়েছেন, কাফনের কাপড়ের টুকরা পাঠিয়েছেন । এসব বাদ দিন । বলে রাখি- ইসলামের বিরুদ্ধে কখনোই আমি না । ইসলাম ধর্মে  বিশ্বাসী তাই অন্য ধর্ম ও তাদের বিশ্বাস বা অনুভুতিকে সম্মান করে চলি। দেশে থাকতে অনেক থ্রেট মেরেছেন , বিদেশে থেকে ও রেহাই দিচ্ছেন না ।এতদিন এতবছর পর বৈশাখ নিয়ে বিদেশ থেকে শুধুমাত্র একটা ফেসবুক লাইফ দিলাম  সেটা ও সহ্য করতে পারছেননা???  আপনারা ( অতি মুসলিম দাবী করা সম্পদায় ) কি চান ??? নারীদের একটু উঁচু গলায় কথা বলতে শুনলেই , সাংবাদিকতা পেশায় দেখলেই আপনাদের গা জ্বলে যায় - হুমকি ধামকি মেরে থামিয়ে দিতে চান আপনারা ! However ,  this is Australia not Bangladesh . ইসলাম কোথায় বলেছে যে নারীরা সাংবাদিকতা করতে পারবেনা? এখন ফেসবুকের যুগ , ডিজিটাল যুগ। দেশ  জাতি ,কমিউনিটির কল্যানে “সিটিজেন জার্নালিজম “ নারী পুরুষ যে কেউ করতে পারে । কতজনকে আপনারা হুমকি ধামকি দিয়ে থামাবেন বা মেরে ফেলবেন ??? তাই বলছি,  ইসলাম নিয়ে বাড়াবাড়ি করা অতি কট্টরপন্থী ভাইয়েরা, আখেরাত পরকালের হিসেব যার টা সেই দিবে । আপনারে এত চিন্তিত হতে হবেনা । আপনি আপনার পরকাল  হিসেব নিয়ে ব্যস্ত থাকুন । নিজের চরকায় তেল দিন । ধর্ম নিয়ে আপনার  কুসংস্কার , বিশ্বাস অন্যের উপর জোর করে চাপানো থেকে বিরত থাকুন please.