বৃহস্পতিবার, ১৮ মে, ২০১৭

বালাগঞ্জে পুকুর থেকে গৃহবধূর লাশ উদ্ধার, স্বামী পলাতক

 বালাগঞ্জে একটি পুকুর থেকে সাফিয়া বেগম নামের এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। বুধবার (১৭ মে) উপজেলার  জনকল্যাণ বাজারের পাশের একটি পুকুর থেকে লাশটি উদ্ধার করে পুলিশ। এ ঘটনার পর থেকেই নিহত গৃহবধূর স্বামী পংকি মিয়া পলাতক রয়েছেন। বালাগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম জালাল উদ্দিন আহমেদ এ তথ্য জানান।
স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, কয়েকদিন আগে স্বামীর সঙ্গে কলহের কারণে যমজ দুই শিশুসহ ৪ সন্তানকে নিয়ে বাবার বাড়ি লামাপাড়া গ্রামে বসবাস করছিলেন তিনি।

মঙ্গলবার (১৬ মে) সন্ধ্যায় জনকল্যাণ বাজারে ৭ মাস বয়সী যমজ দুই শিশুর জন্য খাবার আনতে গিয়েছিলেন সাফিয়া বেগম। সন্ধ্যার পর থেকেই তাকে আর খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না। পরদিন বুধবার দুপুরে জনকল্যাণ বাজারের পাশে সাফিয়ার লাশ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশকে খবর দেন স্থানীয়রা। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠায় পুলিশ।

বালাগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম জালাল উদ্দিন আহমদ জানান, ‘বিভিন্ন আলামত দেখে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে গৃহবধূকে গণধর্ষণের পর খুন করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের পর বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যাবে।’

ওসি আরও জানান, ‘এ ঘটনার পর থেকেই সাফিয়া বেগমের স্বামী পংকি মিয়া পলাতক রয়েছেন। ধারণা করা হচ্ছে, তিনি এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকতে পারেন।’